বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:০০ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শিরোনাম :
অবাধ ও সুষ্ঠু উপনির্বাচনে গণতন্ত্রের বিজয় হয়েছে: কাদের অল্প কিছু ভোটের ব‍্যবধানে হেরেছে হিরো আলম এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু ৩০ এপ্রিল শাহতলী জোবাইদা বালিকা উবিতে শিক্ষার্থীদের মাঝে স্কুল ড্রেস বিতরণ স্বর্ণপদক পেল রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০৩ শিক্ষার্থী চাঁদপুরে ৪৪০ কেজি জাটকা এতিমখানা ও অসহায়দের মধ্যে বিতরণ বাংলাদেশ নিয়ে অন্যদের বাড়াবাড়ির সুযোগ নেই: পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহরাস্তির রাগৈ উচ্চ বিদ্যালয়ের রজতজয়ন্তী পুনমিলনী ও ২টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উন্নয়ন কাজের উদ্ভোধন  জমকালো আয়োজনে চাঁদপুরে এসএসসিতে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত কৃতী শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা ফরিদগঞ্জে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে দেশীয় অস্ত্রসহ গ্রেফতার ৩

প্রাথমিকে বৃত্তি পাবে সাড়ে ৮২ হাজার শিক্ষার্থী

মেঘনার আলো ২৪ ডেস্ক / ২৯ বার পঠিত
আপডেট : সোমবার, ২ জানুয়ারি, ২০২৩, ৭:১৮ অপরাহ্ণ

১৩ বছর পর প্রাথমিকস্তরের পঞ্চম শ্রেণিতে আবারও বৃত্তি পরীক্ষা পদ্ধতি চালু হয়েছে। ৩০ ডিসেম্বর বৃত্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে ৬ লাখ শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। এ পরীক্ষার ফলের মাধ্যমে ৮২ হাজার ৫ শ শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দেয়া হবে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে জানা গেছে, প্রাথমিক শিক্ষা সমাপণি পরীক্ষা পরিচালনা সংক্রান্ত নীতিমালা অনুযায়ী এবার ট্যালেন্টপুলে ৩৩ হাজার ও সাধারণ গ্রেডে ৪৯ হাজার ৫শ শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দেয়া হবে। ট্যালেন্টপুলে বৃত্তির ক্ষেত্রে উপজেলা ভিত্তিক প্রাথমিক শিক্ষা সমাপণি পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের সংখ্যার ভিত্তিতে বৃত্তির ৫০ শতাংশ ছাত্র এবং ৫০ শতাংশ ছাত্রীদের মধ্যে জেন্ডারভিত্তিক মেধা অনুসারে দেয়া হবে।

সাধারণ গ্রেডে ইউনিয়ন ও ওয়ার্ডভিত্তিক ৩ জন ছাত্রী হিসেবে ৪৯ হাজার ৫০০ শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দেওয়া হবে। ট্যালেন্টপুলে বৃত্তিপ্রাপ্তরা মাসিক ৩ শ টাকা এবং সাধারণ গ্রেডে বৃত্তিপ্রাপ্তরা মাসিক ২২৫ টাকা করে পাবে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে জানা গেছে,প্রাথমিকের বৃত্তি পরীক্ষা ১০০ নম্বরে চারটি বিষয় থেকে প্রশ্ন করা হয়েছে। প্রতিটি বিষয়ে ২৫ নম্বর করে প্রশ্ন দেয়া হয়। দু’ ঘণ্টার মধ্যে বহু-নির্বাচনী এবং লিখিত দু’পদ্ধতিতে উত্তর দিতে বলা হয়। তার মধ্যে ৪০ % লিখিত ও ৬০ % এমসিকিউ পদ্ধতির প্রশ্ন ছিল।

সংশ্লিষ্টরা জানান, ২০০৯ সাল থেকে জাতীয়ভাবে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনি পরীক্ষা নেয়া শুরু করে সরকার। প্রথমে শুধু সাধারণ ধারার শিক্ষায় এটি সীমাবদ্ধ ছিল। পরে মাদ্রাসার ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপণি পরীক্ষাও চালু করা হয়। ২০১০ সালে জেএসসি পরীক্ষা শুরু হয়। জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা চালুর পরই বন্ধ হয়ে যায় পঞ্চম ও অষ্টম শ্রেণির বৃত্তি পরীক্ষা।

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, বৃত্তি সংক্রান্ত কার্যক্রম পরিচালনায় একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। তারা সভা করে খাতা মূল্যায়ন ও ফলাফল প্রকাশের দিনক্ষণ নির্ধারণ করবে।

চলতি মাসের (জানুয়ারি) মধ্যে বৃত্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

এক ক্লিকে বিভাগের খবর